Uncategorized, সেলিব্রিটি বার্তা

সংসারের ইতি টানলেন মাহিয়া মাহি

অনেকদিন ধরে গুঞ্জন শোনা যাচ্ছিল চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহির সংসার ভাঙনের ।অনেকবার এই অভিনেত্রীর মন্তব্য ও ফেসবুক স্ট্যাটাসেও বিষয়টি আভাস খুঁজ করতে পেরেছিল ভক্তরা। মাহির সঙ্গে স্বামী অপুর সম্পর্ক এখনো টিকে আছে? এমন প্রশ্ন নেটিজেনদের কাছে ছিল বহু আগে থেকেই। এবার যেন জবাবটা স্পষ্টই পাওয়া গেল।
বিচ্ছেদের বিষয়টি এতদিন শুধু গুঞ্জন হিসেবে আত্মপ্রকাশ পেলেও আজকে মিলল আসল তথ্য। কেননা জানা যায়, সত্যি সত্যি ডিভোর্স হয়ে গেছে জনপ্রিয় এ অভিনেত্রীর।

Tarokaloy_mahiya_mahi

শনিবার রাত দেড়টার দিকে মাহি তার অফিসিয়াল ফেসবুক পোস্টে ডিভোর্সের ব্যাপারটি কিছুটা ইঙ্গিত করে লিখেছেন, এই পৃথিবীর সবচেয়ে ভালো মানুষটার সাথে থাকতে না পারাটা অনেক বড় ব্যর্থতা।
শ্বশুরবাড়ির কথা উল্লেখ করে তিনি লিখেছেন, পৃথিবীর শ্রেষ্ঠ শ্বশুর বাড়ির মানুষগুলোকে আর কাছ থেকে না দেখতে পাওয়াটা, বাবার মুখ থেকে মা জননী, বড় বাবার মুখ থেকে সুনাম শোনার অধিকার হারিয়ে ফেলাটা সবচেয়ে বড় অপারগতা। সে সাথে ক্ষমা চেয়ে মাহি লিখেছেন, আমাকে মাফ করে দিও। তোমরা ভালো থেকো। আমি তোমাদের আজীবন মিস করবো।

Tarokaloy_mahiya_mahi

তবে কি কারণে এত বড় সিদ্ধান্ত নিলেন যার দরুন সংসার টিকলো না তাদের সেটা এখনও ঘোলাটে! কিছুটা ধূসর ছায়া তার কথার মাঝে লক্ষ্য করা যায়। কেননা স্পষ্ট করে জানাননি মাহি। শুধু জানিয়েছেন, স্বামীর সাথে দাম্পত্য জীবনের ইতি টানছেন। তিনি আরো বলেন, এর বেশি কিছু জানাতে চাই না৷

Tarokaloy_mahiya_mahi

গেল ক’দিন ধরেই মাহি নিজের ফেসবুক পোস্টের মাধ্যমে মনের ভেতরে চলা কথা গুলো বিভিন্ন শব্দের মাধ্যমে বহিঃপ্রকাশ করেছেন। ১৬ মে তার পোস্ট ছিল- ‘এরপরও আমরা দুজন মুখোমুখি হবো, কেউ কারও দিকে না তাকিয়েও পেট ভরে দু’জন দু’জনকে দেখবো, ঘ্রাণ নেবো, স্পর্শ করবো।’ ১২ মে অপুর সঙ্গে দু’টি ঘনিষ্ঠ ছবি প্রকাশ করে লিখেছেন- ‘গত ৮৬৪০০ মিনিট ধরে ভাবছি তোমাকে নিয়ে গুনে গুনে ৫১টা লাইন লিখবো। কিন্তু কিভাবে যে লিখবো, ঠিক কোত্থেকে শুরু করবো সেটাই ভেবে পাচ্ছিনা। আচ্ছা আমি কি আর কোনোদিন গুছিয়ে কথা বলাটা শিখবো না তাইনা? তুমি তো আমাকে কিছুই শিখাতে পারলা না, এটাকি ঠিক?’

Tarokaloy_mahiya_mahi

২০১৬ সালের ২৪ মে মাহিয়া মাহির এবং সিলেটের মাহমুদ পারভেজ অপু সাথে বিয়ের বন্ধনে আবদ্ধ হন। দুই পরিবারের সম্মতি থাকায় হুট করেই বিয়ে হয় তাদের। কিন্তু অবশেষে দাম্পত্য জীবনের পাঁচ বছরের মাথায় মাহি তার স্বামী বৈবাহিক সম্পর্ক ইতি টানলেন।

Previous ArticleNext Article