সাজগোজ

৪টি স্কিন কেয়ার ট্রিটমেন্টস যা বিয়ের সপ্তাহে ভুলেও করা উচিত নয়!

বউ হতে যাওয়া অনেক প্রেসারের একটি কাজ। বিয়ের অনুষ্ঠানের ভেন্যু, দাওয়াত , জুয়েলারি, বিয়ের পোশাক সব মিলিয়ে সময় হয়ে উঠে না যে নিজের ত্বকের যত্ন নেয়ার। অনেক কনে আছে যাদের দরকার বিয়ের ছয় মাস আগে থেকেই স্কিন কেয়ার রুটিন করা। আপনি চাইলে মেনিকিউর আর পেডিকিউর শেষ সপ্তাহের জন্য রাখতে পারেন, এছাড়া কিছু ট্রিটমেন্ট আছে যা বিয়ের সপ্তাহে জন্য না রেখে, বিয়ের সাত দিন আগেই করে ফেলা উচিত। জেনে নিন যে ৪টি ট্রিটমেন্টস বিয়ের সপ্তাহে ভুলেও করা উচিত নয়।

 

ওয়েক্সিং

আমরা সবাই জানি বিয়ের মত এত বড় একটা দিনে আপনি চান আপনার ত্বককে মসৃণ ও হেয়ার ফ্রি গ্লোয়িং করতে , এমনকি শরীরের অবাঞ্ছিত লোম ফেলে শরীরের উজ্জ্বলতা বাড়াতে। এই চাওয়া টা খুবই স্বাভাবিক কিন্তু ওয়েক্সিং এর ফলে অনেক সময় দেখা যায় ত্বকে লাল লাল ফুসকুড়ি দেখা দেয়, যা দেখতে মোটেও ভালো দেখায় না। তাই এক সপ্তাহ আগে আপনার ওয়াক্সিং অ্যাপয়েন্টমেন্ট নির্ধারণ করুন যাতে কোনও অপ্রত্যাশিত প্রতিক্রিয়া আপনার বিয়ের সাজসজ্জা নষ্ট না করে।

 

 

থ্রেডিং

ওয়েক্সিং এর মতো থ্রেডিং এও কিছু খারাপ দিক আছে। স্যালুনের মহিলারা থ্রেডিং করে একটু তাড়াহুড়ো করে। আমাদের ঠোঁটের উপরের অংশে যে লোম হয় সেগুলো থ্রেডিং করত হয়। আপনার স্কিন যদি অতিরিক্ত সেনসেটিভ স্কিন হয়ে থাকে তাহলে তো আর কথাই নেই এই তাড়াহুড়ো ই বিপদ ডেকে আনবে। আপারলিপ বা যে কোনো সেনসেটিভ এড়িয়াতে এ থ্রেডিং এর ফলে দেখা দিতে পারে ছোট ছোট ব্রন বা ফুসকুড়ি যা ঠিক হতে অনেক সময় নেয়। তাই থ্রেডিং করতে অবশ্যই বিয়ের এক সপ্তাহ আগেই থ্রেডিং করে ফেলুন।

 

 

ফেসিয়াল

ফেসিয়াল করা হয় একটি সুন্দর গ্লোয়িং ত্বকের জন্য। ফেসিয়াল করালে সাথে সাথেই ত্বকের পরিবর্তন আসে না একটু সময় নেয় ত্বকের উজ্জ্বলতা আসতে। তাই বিয়ের আগের দিন রাতে ভুলেও ফেসিয়াল করাবেন না। করতে হলে ৪-৫ দিন আগে করে নিবেন এতে করে ত্বকের উজ্জ্বলতাও পাবেন বিয়ের মেকআপটি ও সুন্দরভাবে ফুটে উঠেবে। যে কোনো ত্বকের যত্ন নিতে অবশ্যই সময় নিন। তাড়াহুড়ো করে কোন কিছুই ভালো হয় না বা সঠিক রেজাল্ট পাওয়া যায় না।

 

 

বোটক্স(botox)/ফিলারস (fillers)

বোটক্স বা ফিলারস হচ্ছে এক ধরনের ঔষধি বিশেষ যা ইনজেকশনের মাধ্যমে মুখের ত্বকের মধ্যে প্রবেশ করানো হয়, বলি-রেখাহীন মসৃণ ত্বকের জন্য। এই ধরনের ফেসিয়াল ট্রিটমেন্ট অবশ্যই হাতে সময় রেখে করা উচিত কেননা এর পার্শ্বপতিক্রিয়া দেখা দিলে যেন পদক্ষেপ গ্রহণ করা যায়। অনেকেই এর ফলে ভোগান্তির মধ্যে পড়েছেন। তাই বিয়ের মত একটি বিশেষ দিনে ভুলেও এটি করতে যাবেন না। ত্বকের সঠিক যত্ন নিন ত্বক এমনিতেই সুন্দর দেখাবে।

 

 

তারকালয়////রুপা 

Previous ArticleNext Article