Uncategorized, সেলিব্রিটি বার্তা

স্মৃতি চারণ করলেন “কোয়েল মল্লিক”

স্মৃতির পথে হাঁটলেন কোয়েল। মা হওয়া পৃথিবীর সচাইতে আনন্দকর একটি সময়,যখন একটি শিশু মায়ের গর্ভে থাকে,তখন সেই সময় থেকে পৃথিবীতে আসার আগ পর্যন্ত মায়ের কাছে এই সময় টুকু ,সব কিছু থেকে দামী এবং সর্বশ্রেষ্ঠ। সেই সময়ের ছবি পোস্ট করে জীবনের সবথেকে দামি মুহূর্তের রোমাঞ্চ ভাগ করে নিলেন নিজের ভক্ত এবং কাছের সঙ্গে।
মা হওয়ার যে ন’টি মাসের যাত্রা, সেটাই তাঁর জীবনে সবচেয়ে আনন্দের। সে কথাই জানালেন টলিপাড়ার প্রথম সারির অভিনেত্রী।

tarokaloy_koel_mallick

আজ কোয়েল ফিরে গেলেন একদম শুরুর সময়ের দিকে। সেই সময়ের তিনটি ছবি পোস্ট করলেন ইনস্টাগ্রামে। লাল ঢোলা কুর্তি। গলায় রঙবেরঙের হার। খোলা চুল। মাতৃত্বের লাবণ্য তাঁর চেহারায়। মনে হচ্ছে যেনো,লাবণ্যতা আরো বেশি পরিপূর্ণতা পেয়েছে। তার রূপ এবং সুন্দর্যের কোনো কমতি কখনোই ছিল না,কিন্তু তার মা হওয়ার পর যেনো পরিপূর্ণতায় ভরে গিয়েছে।

tarokaloy_koel_mallick

২০১৩ সালে ফেব্রুয়ারিতে নিশপাল সিংকে বিয়ে করেন কোয়েল। বিয়ে হিন্দু ও পুঞ্জাবি দুই নিয়মেই পালিত হয়। তারপরে সিনেমা জগত থেকে কিছুটা আলাদা হয়ে সংসারে মন। পরপর দারুণ ছবিতে কামব্যাক কোয়েলের। ফিরে এসেও বক্স অফিসে হিট। বিয়ের ৭ বছরের বর্ষপূর্তির দিন স্বামীর সঙ্গে ছবি প্রকাশ করে মা হওয়ার সুখবর জানিয়েছিলেন কোয়েল মল্লিক।  সাত বছর পর গত ৫ মে এ দম্পতির সংসার আলো পুত্র সন্তানের জন্ম হয়

tarokaloy_koel_mallick

তার জীবনের এই মুহুর্ত গুলো শেয়ার করেন এবং
ক্যাপশনে লিখলেন, ‘এই বছরের শুরুর দিকে… নিউ নর্ম্যাল শুরু হওয়ার আগে…যখন আমি অত্যন্ত আনন্দিত ও গর্বিত। সন্তানের আশায়’। কোভিড-কালে জন্ম তাঁর ছেলের। হাসপাতালের বেডে শুয়ে কোয়েল মল্লিক। পাশে স্বামী নিসপাল সিংহ। মায়ের কোলে সদ্যোজাতর প্রথম ছবি। সেই দিনই ভাইরাল হয়ে যায় নতুন পরিবারের ছবি। নাম রাখা হল কবীর।

tarokaloy_koel_mallick

ছেলে জন্মানোর সঙ্গে সঙ্গেই নামকরণ হয়নি। শেষে অষ্টমীর দিন নিজের ইনস্টাগ্রাম পেজে ছেলের নাম প্রকাশ করেন দম্পতি। যদিও ইউভানের মতো ঘন ঘন কবীরকে দেখা যায় না সোশ্যাল মিডিয়ায়।

tarokaloy_koel_mallick


এই প্ল্যাটফর্ম থেকে তাঁকে খানিক দূরেই রেখেছেন তার মা। কিন্তু কিছু ছবি না দিয়ে পারেননি কোয়েল মল্লিক। তাই কোয়েলের প্রোফাইলে গেলেই কবীরের বিভিন্ন অভিব্যক্তির ছবি দেখতে পাওয়া যাবে। তার হাসিমুখ দেখে যেন মন ফুরফুরে হয়ে যায়।

Previous ArticleNext Article