Uncategorized, রেসিপি

তরমুজের খোসা দিয়ে রেসিপি

বিশেষজ্ঞরা বলে,সব ধরনের ফল অথবা সবজির খোসার মধ্যেই রয়েছে খাদ্যের পরিপূর্ণ পুষ্টি এবং উপকারিতা কিন্তু তারমানে তো এই নয়,সব সবজির বা ফলের খোসা খাবার হিসেবে খাওয়া যায়। কিন্তু কিছু কিছু সবজি থাকে যা অবশ্যই রান্না করে খাওয়া সম্ভব। আজকে এমনিই একটি রেসিপি নিয়ে এসেছি যা মূলত তৈরি হবে খোসা দিয়ে। কখনো ভেবেছিলেন তরমুজের খোসা ফেলে না দিয়ে অসাধারণ একটা সবজি ভাজি তৈরী করা যায়?

Tarokaloy_new_recipe

কি অবাক লাগছে তরমুজের খোসা দিয়ে সবজি!! কিন্তু এটাই সম্ভব। কারণ তরমুজের লাল অংশ টুকু খেয়ে কিন্তু বাকি যে অংশটি অবশিষ্ট থাকে,টা অনায়েসে গ্রহণযোগ্য। এখন গ্রীষ্ম কাল তরমুজের মৌসুম , বাজারে এখন তরমুজ পাওয়া যাচ্ছে সহজলভ্য। তাহলে জেনে নেই কিভাবে প্রস্তুত করা যায় তরমুজের খোসা সবজি।

প্রথম: তরমুজের খোসাটি ভাজির জন্য কেটে নিতে হবে কিন্তু তরমুজের সম্পূর্ণ খোসা টি নেয়া যাবে না ,উপরের সবুজ অংশটি বা সবুজ চামড়াটি ছিলে,ভিতরের যে সাদা অংশ টুকু,সে অংশটুকু ভালোভাবে গ্রেডার অথবা চুরি দিয়ে কুচি করে নিয়ে হবে।

প্রস্তুতি প্রণালী এবং উপকরণঃ

Tarokaloy_new_recipe

উপকরণঃ
•তরমুজের খোসা কুচি ৫ কাপ
•তেল আধা কাপ
•পাঁচ ফোড়ন আধা চা চামচ
•পিঁয়াজ কুচি আধা কাপ থেকে একটু কম
•কাঁচা মরিচ ৪/৫ টি
•লবণ আধা চা চামুচ
•ধনে গুঁড়ি আধা চা চামুচ
•সামান্য পরিমাণ হলুদের গুঁড়ি

Tarokaloy_new_recipe

প্রস্তুতি
• প্রথমত একটি চেপ্টা পেনে ,রান্নার তেল আধা কাপ পরিমাণ দিয়ে এতে ,পাঁচ ফোড়ন দিয়ে দিন,একটু কিছুক্ষন নেরে তারপর পেঁয়াজ কুচি দিয়ে দিন।

• পেঁয়াজ কুচি এবং পাঁচ ফোড়ন ভালো ভাবে ভেজে নিন যতক্ষণ না পর্যন্ত একটু বাদামি রং চলে না আসে।

• বাদামি রং চলে আসলে ,ফালি করে কাটা মরিচ গুলো দিয়ে পুনরায় একটু ভেজে নিন।

• মরিচ গুলো ভেজে আসলে ,সেখানে কুচি করা তরমুজের খোসা দিয়ে দিন ,তার পর লবণ ,হলুদ এবং ধনিয়া গুড়া দিয়ে কিছুক্ষণ নাড়িয়ে দিন। ভালো ভাবে নেড়ে নিতে হবে যেনো মশলা সাথে মিশে যায়। মনে রাখতে হবে এই ভাজিতে পানি দেয়ার কোনো দরকার নেই। ৬/৭ মিনিট পর ভাজি প্রস্তুত।

এই ভাজিটি পরোটা অথবা লুচির সাথে অসম্ভব মজা নিয়ে উপভোগ করা যাবে। তাহলে দেরি না করে আজই তৈরি করুন এই রেসিপি।

Previous ArticleNext Article